শুক্রবার, ২২ জানুয়ারী ২০২১, ১০:৫৭ অপরাহ্ন৮ই মাঘ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

৮ই জমাদিউস সানি, ১৪৪২ হিজরি

সংবাদ শিরোনাম :
দাউদকান্দি পৌরসভায় ফের নৌকার মাঝি হলেন নাইম ইউসুফ সেইন উন্নয়নে বদলে যাচ্ছে হোমনা পৌরসভার দৃশ্যপট দাউদকান্দিতে অসহায় দুস্থ্যদের মাঝে কম্বল বিতরণ আ’লীগের কেন্দ্রীয় উপ-কমিটির সদস্য হলেন মেঘনার আমান উল্লাহ আমান মেঘনায় শীতবস্ত্র নিয়ে অসহায়দের পাশে যুবলীগ নেতা জাকির হোসেন মেয়র সেইনের কর্মতৎপরতা ॥ বদলে যাচ্ছে দাউদকান্দি পৌরসভার চিত্র পদ্মা মেঘনা গ্লোবাল ফাউন্ডেশনের কম্বল পেল মেঘনা উপজেলার শীতার্তরা দাউদকান্দিতে তৃতীয় শ্রেণীর কর্মচারীদের মানববন্ধন ও স্বারকলিপি প্রদান দাউদকান্দিতে হাইওয়ে পুলিশের আন্তঃ ইউনিট ব্যাডমিন্টন প্রতিযোগিতার ফাইনাল খেলা অনুষ্টিত দাউদকান্দিতে বিজয় দিবসে মুক্তিযুদ্ধ স্মৃতিস্তম্ভে মানুষের ঢল
মঙ্গলেও কি প্রাণ আছে ?

মঙ্গলেও কি প্রাণ আছে ?

জাগো ডেস্কঃ মঙ্গলের বায়ুমণ্ডলে এই প্রথম হদিশ মিলল অক্সিজেন অণুর। পৃথিবীর শ্বাসের বাতাস। প্রাণ সঞ্চারের প্রধান জ্বালানি। মঙ্গলের বায়ুমণ্ডলে এই আবিষ্কার ভিন গ্রহে প্রাণের অস্তিত্বের সম্ভাবনাকে আরও জোরালো করে তুলল। যে আবিষ্কারের সঙ্গে জড়িয়ে গেল এক অনাবাসী ভারতীয়ের নামও। মিশিগান বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক সুশীল আত্রেয়।

নাসার রোভার ‘কিউরিওসিটি’র পাঠানো তথ্যাদি বিশ্লেষণ করে লেখা সেই গবেষণাপত্রটি প্রকাশিত হয়েছে আন্তর্জাতিক বিজ্ঞান-জার্নাল ‘জিওফিজিক্যাল রিসার্চ: প্ল্যানেটস’-এর সাম্প্রতিক সংখ্যায়।বসন্তে লাফিয়ে বাড়ছে অক্সিজেন, দ্রুত কমছে শীত, গ্রীষ্মে!

গবেষকরা জানিয়েছেন, মঙ্গলের খুব পাতলা হয়ে আসা বায়ুমণ্ডলে অন্যান্য গ্যাসের সঙ্গে এখনও রয়েছে অক্সিজেন। অক্সিজেন অণু। যা দু’টি অক্সিজেন পরমাণু দিয়ে গড়া। পৃথিবীর মতোই। আর তার পরিমাণটাও একেবারে উড়িয়ে দেওয়ার মতো নয়। ০.১৩ শতাংশ। এছাড়াও মঙ্গলের মাটির তথ্য বিশ্লেষণ করেও দেখা গেছে, লাল মাটির কয়েক ইঞ্চি নীচেই রয়েছে পাতলা বরফের স্তর।

ভারতীয় মহাকাশ গবেষণা সংস্থা (ইসরো) থেকে পিএইচডি করার পর এখন মিশিগান বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্লাইমেট অ্যান্ড স্পেস সায়েন্স অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিংয়ের অধ্যাপক, সহযোগী গবেষক সুশীল আত্রেয় বলেন, ‘যা আমাদের অবাক করে দিয়েছে, তা হল; মঙ্গলের বায়ুমণ্ডলে সেই অক্সিজেনের পরিমাণটা বিভিন্ন ঋতুতে বাড়া-কমা করছে। যেটা পৃথিবীতে হয় না। আমরা দেখেছি, মঙ্গলে যখন বসন্ত আসে, তখন তার বায়ুমণ্ডলে এক লাফে প্রায় তিন গুণ বেড়ে যায় অক্সিজেনের পরিমাণ। তার পর বছর যত এগোয়, ততই তা ধীরে ধীরে কমে যেতে শুরু করে। এটা কেন হয়, এখনও আমরা তা বুঝে উঠতে পারিনি।’

এই বিষয়ে ধোঁয়াশায় থাকলেও মঙ্গলের বুকে এই অক্সিজেনের সন্ধানে নতুন আশার আলো দেখেছেন বিজ্ঞানীরা। ফলে মঙ্গল অভিযানে নতুন করে আগ্রহ বাড়বে বলে মনে করছেন বিজ্ঞানীরা।

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  





error: Content is protected !!
themesba-zoom1715152249
© "আমাদের দাউদকান্দি" কর্তৃক সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত।
Developed By: Nagorik IT
error: Content is protected !!