বারপাড়ায় আনারস সমর্থকদের উপর টেলিফোন সমর্থকদের হামলার অভিযোগ


প্রকাশের সময় : মার্চ ২, ২০২৩, ৩:১১ অপরাহ্ণ
বারপাড়ায় আনারস সমর্থকদের উপর টেলিফোন সমর্থকদের হামলার অভিযোগ

স্টাফ রিপোর্টার,
দাউদকান্দি উপজেলার বারপাড়া ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে এক চেয়ারম্যান(স্বতন্ত্র) প্রার্থীর (টেলিফোন) সমর্থকরা অপর চেয়ারম্যান(স্বতন্ত্র) প্রার্থীর (আনারস) সমর্থকদের ওপর হামলার অভিযোগ উঠেছে । পোষ্টার ব্যানার টানানোকে কেন্দ্র করে বুধবার রাত সাড়ে দশটায় ওই ইউনিয়নের কানড়া তিন রাস্তার মোড়ে এ হামলার ঘটনা ঘটেছে।
বৃহস্পতিবার দুপুরে আনারস প্রতিকের প্রার্থী মাজারুল ইসলাম মানিক সওদাগড় নিজ বাড়ীতে সংবাদ সম্মেলন করে এমন অভিযোগ করেছেন।
তিনি জানান, বুধবার রাতে আমার সমর্থকরা ব্যানার পোস্টার লাগানোর জন্য কানড়া দুর্গাপুর এলাকায় যায়। ইউনিয়নের ওই এলাকায় পৌছলে স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী (টেলিফোন ) শফিউল বাসার সুমনের সমর্থকরা তাদের উপর হামলা করে। আমার সমর্থক মনিরের বাড়ীও ভাংচুর করে। হামলায় আহত শাহ আলম মুন্সি(৫০) বর্তমানে গৌরীপুর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। নির্বানের তফসিল ঘোষণার পর থেকে বিভিন্ন সময় আমার লোকজনকে নানাভাবে হুমকি দিয়ে আসছে সুমনের লোকজন। সংবাদ সম্মেলনে তিনি নির্বাচনে সকল প্রার্থীর জন্য সমান অধিকার ও সুষ্ঠু পরিবেশ বজায় রাখতে প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করেন।
মনির হোসেন বলেন, মানিক সওদাগরের আনারস মার্কার ব্যানারের উপর সুমনের সমর্থকরা টেলিফোন মার্কার ব্যানার টানায়। এর প্রতিবাদ করায় সুমনের লোকজন আমাদের উপর হামলা করে বাড়ী ঘর ভাংচুর ও লুটপাট করে।
টেলিফোন প্রতিকের প্রর্থী শফিউল বাসার সুমনের মুঠোফোনে একাধিকবার কল করা হলেও তিনি রিসিভ করেননি।
দাউদকান্দি মডেল থানার ওসি মোঃ আলমগীর ভূঞা বলেন, রাতে খবর পেয়েই পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। আর এঘটনায় উভয় পক্ষের পৃথক দু’টি অভিযোগ পেয়েছি। তদন্ত সাপোক্ষে আইনি ব্যবস্থা নেয়া হবে। আর নির্বাচনকে ঘিরে কোন ধরনের সহিংসতাকারী কাউকে ছাড় দেয়া হবে না।
উল্লেখ্য, আগামী ১৬মার্চ এ ইউনিয়নে নির্বাচন অনুষ্টিত হবে।

শেয়ার করুন
error: কপিরাইট এর আওতাধীন!!